ঢাকা ০৭:১০ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪, ৩ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে একটি বাড়ি ঘরে রেখেছে পুলিশ : ১৭ রাউন্ড গুলিসহ পিস্তল উদ্ধার 

নেত্রকোণা সদর উপজেলার কাইলাটি ইউনিয়নের ভাসাপাড়া এলাকায় জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে এক ব্যক্তির একটি বাড়ি আজ শনিবার বিকেল থেকে পুলিশ ঘিরে রেখেছে।
পুলিশ জানায়, সদর উপজেলার ওই বাড়িটি প্রফেসর আব্দুল মান্নান নামের এক ব্যক্তির। গ্রামের নির্জন স্থানের এই বাড়ির ভাড়া নিয়ে জঙ্গিরা তাদের কার্যক্রম চালাচ্ছিল। স্থানীয় পুলিশের অভিযানে একটি বিদেশি পিস্তল, সতেরো রাউন্ড গুলি, পর্যাপ্ত জঙ্গি কাজে ব্যবহৃত সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়।
শুক্রবার রাতেই গোপন সূত্রের খবরের ভিত্তিতে পুলিশের একটি বিশেষ টিম শনিবার দুপুরে প্রাথমিক তল্লাশী চালায় এবং একটি ভারতীয় পিস্তল, ১৭ রাউন্ড গুলি এব্বগ একটি ডামি একে ৪৭ বন্দুক উদ্ধার করে। তবে বাড়ির ভিতরে বোমা থাকতে পারে ধারনায় ময়মনসিংহ থেকে বোমা ডিস্পোজাল টিম এসেছে। স্থানীয় লোকজন জানায়, বাড়িটিতে মহিলা ও শিশু রয়েছে।পুরুষ জঙ্গী  থাকতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।
নেত্রকোণার পুলিশ সুপার ফয়েজ আহমেদ  ঘটনা স্থল থেকে জানান, বাড়ির মালিক হচ্ছেন অবসর প্রাপ্ত ইঞ্জিনিয়ার ড. আব্দুল মান্নান। তার বাড়ি জেলার আটপাড়া উপজেলার স্বরমশিয়া ইউনিয়নের নোয়াপাড়া গ্রামে। তবে তিনি গাজিপুরে থাকেন বলে পুলিশ সুপার জানিয়েছেন। দুই বছর আগে আরিফ নামের এক ব্যাক্তিকে ভাড়া দেয়া হয়েছে। তবে তাকে পাওয়া যায় নি। পুলিশ আসার খবর টের পেয়ে জঙ্গীরা হয়তো পালিয়ে গিয়ে থাকতে পারে।
ট্যাগস :
আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

ফরিদপুরের আদিবাসীদের শিক্ষা কর্মসংস্থান ও বাসস্থানের নিশ্চয়তা দাবী

জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে একটি বাড়ি ঘরে রেখেছে পুলিশ : ১৭ রাউন্ড গুলিসহ পিস্তল উদ্ধার 

আপডেট সময় ১০:৪৫:২০ অপরাহ্ন, শনিবার, ৮ জুন ২০২৪
নেত্রকোণা সদর উপজেলার কাইলাটি ইউনিয়নের ভাসাপাড়া এলাকায় জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে এক ব্যক্তির একটি বাড়ি আজ শনিবার বিকেল থেকে পুলিশ ঘিরে রেখেছে।
পুলিশ জানায়, সদর উপজেলার ওই বাড়িটি প্রফেসর আব্দুল মান্নান নামের এক ব্যক্তির। গ্রামের নির্জন স্থানের এই বাড়ির ভাড়া নিয়ে জঙ্গিরা তাদের কার্যক্রম চালাচ্ছিল। স্থানীয় পুলিশের অভিযানে একটি বিদেশি পিস্তল, সতেরো রাউন্ড গুলি, পর্যাপ্ত জঙ্গি কাজে ব্যবহৃত সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়।
শুক্রবার রাতেই গোপন সূত্রের খবরের ভিত্তিতে পুলিশের একটি বিশেষ টিম শনিবার দুপুরে প্রাথমিক তল্লাশী চালায় এবং একটি ভারতীয় পিস্তল, ১৭ রাউন্ড গুলি এব্বগ একটি ডামি একে ৪৭ বন্দুক উদ্ধার করে। তবে বাড়ির ভিতরে বোমা থাকতে পারে ধারনায় ময়মনসিংহ থেকে বোমা ডিস্পোজাল টিম এসেছে। স্থানীয় লোকজন জানায়, বাড়িটিতে মহিলা ও শিশু রয়েছে।পুরুষ জঙ্গী  থাকতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।
নেত্রকোণার পুলিশ সুপার ফয়েজ আহমেদ  ঘটনা স্থল থেকে জানান, বাড়ির মালিক হচ্ছেন অবসর প্রাপ্ত ইঞ্জিনিয়ার ড. আব্দুল মান্নান। তার বাড়ি জেলার আটপাড়া উপজেলার স্বরমশিয়া ইউনিয়নের নোয়াপাড়া গ্রামে। তবে তিনি গাজিপুরে থাকেন বলে পুলিশ সুপার জানিয়েছেন। দুই বছর আগে আরিফ নামের এক ব্যাক্তিকে ভাড়া দেয়া হয়েছে। তবে তাকে পাওয়া যায় নি। পুলিশ আসার খবর টের পেয়ে জঙ্গীরা হয়তো পালিয়ে গিয়ে থাকতে পারে।