ঢাকা ০৪:৩৫ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

শ্রীনগরে রাতের আধারে গরু চুরি, মালিক-কে প্রান নাশের হুমকী

মুন্সীগঞ্জের শ্রীনগরে রাতের আধারে গরু চুরির ঘটনা ঘটেছে।
গত শুক্রবার  উপজেলার ষোলঘর ইউনিয়নের কেওটখালী এলাকায় এই গরু চুরির ঘটনা ঘটে। এবিষয় শ্রীনগর থানায় আব্দুর রহিম এর স্ত্রী মোসাঃ আকলিমা বেগম বাদী হয়ে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।
অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার দিবাগত রাত ৪টার দিকে আকলিমা বেগমের ঘুম ভেঙে গেলে সে তার দরজা খুলতে গিয়ে দেখে বাহির থেকে বন্ধ করে রাখা। সে কৌশলে দরজা খুলে গোয়াল ঘরে গরু দেখতে গেলে সেখানে গিয়ে দেখে গোয়ালঘরের দরজার হ্যাজবোল্ড ও ছিকল কাটা। গোয়ালঘরে থাকা লাল রংয়ের ৫ মাসের গাভী ১টি বাছুর এবং ২টি প্রাপ্তবয়স্ক লাল রংয়েন গাভী চুরি করে নিয়ে যায়।
 আকলিমা বেগম বলেন, গত শুক্রবার রাত আনুমানিক ৪টার দিকে আমার গোয়াল ঘর থেকে শব্দ শুনতে পাই। গোয়াল ঘরের শব্দ শুনে আমাদের ঘুম ভাঙ্গলে বাহিরে গিয়ে দেখার জন্য আমি ও আমার স্বামী দুই জনে দরজা খুলতে গেলে দেখি দরজা বাহির থেকে আটকানো। দরজা খুলতে না পেরে জানালা খুলতেই দেখি ৩/৪ জন মানুষ আমাদের গোয়াল ঘরের ওই দিক দিয়ে হাটাহাটি করছে।  এটা দেখে আমি চোর বলে চিৎকার দিতে আমাদের পাশের গ্রামের আমিন উদ্দীন খালাসির ছেলে জসিম জানালার সামনে আইসা বলেন প্রানে বাচতে চাইলে একবারে চুপ করে বসে থাক।  আমরা যাওয়ার আগে যদি কোন শব্দ করোছ তাহলে গরুর সাথে প্রানটা ও হারাবি।  প্রানের ভয় আর কোন কথা বলিনি পরদিন সকালে এই বিষয় আমাদের ওয়ার্ড মেম্বার মোগদম-কে জানিয়েছি ও শ্রীনগর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেছি।
 অভিযোগ তদন্ত কর্মকর্তা শ্রীনগর থানার এস আই তাইফুল রহমান জানান, তদন্ত চলমান রয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে আইগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।
ট্যাগস :
আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

ফরিদপুরের আদিবাসীদের শিক্ষা কর্মসংস্থান ও বাসস্থানের নিশ্চয়তা দাবী

শ্রীনগরে রাতের আধারে গরু চুরি, মালিক-কে প্রান নাশের হুমকী

আপডেট সময় ০৪:১৭:১১ অপরাহ্ন, শনিবার, ৪ মে ২০২৪
মুন্সীগঞ্জের শ্রীনগরে রাতের আধারে গরু চুরির ঘটনা ঘটেছে।
গত শুক্রবার  উপজেলার ষোলঘর ইউনিয়নের কেওটখালী এলাকায় এই গরু চুরির ঘটনা ঘটে। এবিষয় শ্রীনগর থানায় আব্দুর রহিম এর স্ত্রী মোসাঃ আকলিমা বেগম বাদী হয়ে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।
অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার দিবাগত রাত ৪টার দিকে আকলিমা বেগমের ঘুম ভেঙে গেলে সে তার দরজা খুলতে গিয়ে দেখে বাহির থেকে বন্ধ করে রাখা। সে কৌশলে দরজা খুলে গোয়াল ঘরে গরু দেখতে গেলে সেখানে গিয়ে দেখে গোয়ালঘরের দরজার হ্যাজবোল্ড ও ছিকল কাটা। গোয়ালঘরে থাকা লাল রংয়ের ৫ মাসের গাভী ১টি বাছুর এবং ২টি প্রাপ্তবয়স্ক লাল রংয়েন গাভী চুরি করে নিয়ে যায়।
 আকলিমা বেগম বলেন, গত শুক্রবার রাত আনুমানিক ৪টার দিকে আমার গোয়াল ঘর থেকে শব্দ শুনতে পাই। গোয়াল ঘরের শব্দ শুনে আমাদের ঘুম ভাঙ্গলে বাহিরে গিয়ে দেখার জন্য আমি ও আমার স্বামী দুই জনে দরজা খুলতে গেলে দেখি দরজা বাহির থেকে আটকানো। দরজা খুলতে না পেরে জানালা খুলতেই দেখি ৩/৪ জন মানুষ আমাদের গোয়াল ঘরের ওই দিক দিয়ে হাটাহাটি করছে।  এটা দেখে আমি চোর বলে চিৎকার দিতে আমাদের পাশের গ্রামের আমিন উদ্দীন খালাসির ছেলে জসিম জানালার সামনে আইসা বলেন প্রানে বাচতে চাইলে একবারে চুপ করে বসে থাক।  আমরা যাওয়ার আগে যদি কোন শব্দ করোছ তাহলে গরুর সাথে প্রানটা ও হারাবি।  প্রানের ভয় আর কোন কথা বলিনি পরদিন সকালে এই বিষয় আমাদের ওয়ার্ড মেম্বার মোগদম-কে জানিয়েছি ও শ্রীনগর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেছি।
 অভিযোগ তদন্ত কর্মকর্তা শ্রীনগর থানার এস আই তাইফুল রহমান জানান, তদন্ত চলমান রয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে আইগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।