ভিপি নূর এর নতুন দল কে শুভ কামনা জানালেন কলামিস্ট ইশতিয়াক চৌধুরী

সিলেট জেলা প্রতিনিধিঃ
বর্তমান সময়ের সিলেট এর উদীয়মান তরুণ আলোচিত প্রতিবাদী কলামিস্ট ইশতিয়াক চৌধুরী ঢাকসু ভিপি নূর কে তার সাহসের প্রশংসা করে  তার নতুন দল কে শুভকামনা জানিয়ে তার ফেসবুক মজা করে অনেকটা ব্যাতিক্রম ভংগীতে একটি কলামে লিখেনঃ
ঢাকসু ভিপি নূর যদিও আমার সমবয়সী তবু তাকে ভিপি এবং নতুন একটি রাজনীতিক দলের প্রধান হিসেবে অফিসিয়ালি সম্মান দিয়ে  আপনি বলছি।
নূর আপনার সাহস এবং ধর্য্য সত্যি নেতৃত্ব দেওয়ার যোগ্যতা রাখে বা প্রশংসার পাত্র।
আপনার আর আমার শারীরিক গঠন বা স্বাস্থ্য প্রায়ই এক জীবনে রাজনীতি যখন উদীয়মান ছিলাম তখন আমাদের সিলেট এ সারা জাগানো একটি মিনি ফুটবল টুর্ণামেন্ট চালু হয়েছিল কাউন্সিলর আজাদ কাপ ফুটসাল টুর্ণামেন্ট যেখানে আপনার মতই ভাইরালের আসায় এবং নিজের নাম ফুটানোর চেষ্টায় একটা টিম দেই সেই টুর্ণামেন্টে ইশতিয়াক ফাইটার্স নামে।
যার টিম ম্যানেজার এবং একস্ট্রা প্লিয়ার হিসাবে সেই দিন মাঠে ছিলাম।
আমার টিম সেই দিন একটানা প্রতিপক্ষ কে ০ গোলে রেখে ৯ গোলে এগিয়ে ছিল সেই আনন্দে ফুটবল প্লিয়ার না হয়েও একস্ট্রা প্লিয়ার হিসেবে সর্ব শেষ ১০ মিনিটি মাঠে খেলতে নেমেছিলাম যখন মাঠে নামছিলাম তখন দর্শক এর চিৎকার এবং সমর্থন দেখে নিজেকে মেসি বা নেইমার মনে হয়েছিল।
১০ মিনিট আমার জীবনের সেরা শিক্ষনীয় সময় ছিল কারন ১০ মিনিটের মধ্য ৯ মিনিট ৩০ সেকেন্ড হোচট খেয়ে অন্তত ১৮ বার মাটিতে পড়েছি এবং সর্ব শেষ ৩০ সেকেন্টে আমি বল রিসিভ করতে গিয়ে বলের সামনে পড়ে যাই। তখন প্রায় ৩০ সেকেন্ড পক্ষ এবং প্রতিপক্ষ আমাকে বল মনে করে সেই লেভেল এর উড়াধুরা লাথ উস্টা দিতে থাকে।
যে ১৮ বার পড়েছিলাম আর ঐ ৩০ সেকেন্ড লাথ উস্টা আমার উপর চলছিল বিশ্বাস করুন ৯ গোলেও এত আওয়াজ বা সমর্থন পাওয়া যায় নি।
সেই দিন থেকে আজ পর্যন্ত অনেক ফুটবল টুর্ণামেন্টে টিম দিলেও নিজের জীবনের ঐ ১০ মিনিটের ১৮ বার হোচট আর ৩০ সেকেন্ড এর ঐ উড়াধুরা লাথি উস্টা মনে হলে ফুটবল প্লেয়ার হিসেবে নিজের পরিচয় নিজেই ভুলে যাই।
এমন অবস্থায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এর সাধারণ ছাত্র ছাত্রীদের একের পর এক মিনিট অধিক লাথ উস্টা সহ্য করে এখন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এর গন্ডি থেকে বেড়িয়ে সারা দেশের ৩০০ আসনে ঘন্টা হিসাব উড়াধুরা লাথ উস্টা সহ্য করার সাহস সত্যি আপনার ব্যাক্তিগত সাহস এবং ধর্য্যর প্রশংসা না করে পাড়লাম না৷
আপনার নতুন দল এবং ৩০০ আসনের নতুন উড়াধুরা প্লেয়ার বা সাংসদ প্রার্থীদের প্রতি আমার ব্যাক্তিগত অগ্রীম অভিন্দন এবং শুভকামনা।